শিরোনাম

প্রচ্ছদ Uncategorized, নবীনগরের খবর, শিরোনাম, স্লাইডার

নবীনগরের ইব্রাহিমপুরে সন্তান সম্ভবা সেই নারী স্ত্রীর স্বীকৃতি পেল

ডেস্ক রিপোর্ট | মঙ্গলবার, ২০ জুন ২০১৭ | পড়া হয়েছে 3982 বার

নবীনগরের ইব্রাহিমপুরে সন্তান সম্ভবা সেই নারী স্ত্রীর স্বীকৃতি পেল

বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে অনৈতিক সম্পর্কের ঘটনায় এক নারী সন্তান সম্ভবা হয়ে পরলে ঘটনাটি প্রকাশ পাবার পর বিয়েতে অস্বীকৃতি জানায় প্রেমিক জনি মিয়া (২২) নামে এক যুবক। পরে অসহায় ওই মহিলাকে নিয়ে বিপাকে পরে যান উপজেলার ইব্রাহিমপুর পুর্ব পাড়ার এক প্রবাসীর স্ত্রী।

সুত্র জানায়, ওই এলাকার প্রবাসী এরশাদ মিয়ার বাড়িতে গৃহ পরিচারিকার কাজ করতো ২৪ বছরের এক মহিলা।
পিতৃহীন ও মানসিক ভারসাম্যহীন মায়ের সংসারে অভাব অনটনের জ্বালা সইতে না পেরে ৪ বছর আগে ঠায় হয় এরশাদ মিয়ার সংসারে। এ পরিবারে থেকেই টুকটাক সাংসারিক কাজকর্ম সম্পাদন ও নিত্য আহারের চাহিদা মেটাতো সে।


সন্তান সম্ভবা ওই মহিলা জানায়, কিছুদিন আগে পাশের বাড়ির ইউনুছ মিয়ার ছেলে জনির সাথে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। ধীরেধীরে তা গভীর হতে থাকে। এক পর্যায়ে মেয়েটির শারীরিক পরিবর্তন দেখে প্রবাসী এরশাদ মিয়ার স্ত্রী ডাক্তারি পরিক্ষা করে নিশ্চিত হন সন্তান হবার বিষয়টি।

এরশাদ মিয়ার স্ত্রী জানায়, ওই মহিলার কাছ থেকে পুরু বিষয়টি শুনার পর তিনি ইউনুছ মিয়ার বাড়িতে বিয়ের প্রস্তাব পাঠালে তারা বিয়েতে অস্বীকৃতি জানায়।
পরে তিনিও দিশেহারা হয়ে পরেন। কি করবেন ভেবে পাননা।
এ ঘটনার পর ‘নবীনগরের খবর’ পেইজে ‘কে নেবে সন্তানের দায়’ শিরোনামে একটি পোস্ট দেয়া হয়।

এরপরে নড়েচড়ে বসেন গ্রামের নীতিনির্ধারকগণ। তারা বিষয়টি মিমাংসার লক্ষে শালিশের আহবান করেন। গত ১৬ জুন র ইব্রাহিমপুর বাশবাজারের পাশেই শালিশ বসলেও সেখানে ইউনুছ মিয়ার পরিবারের পক্ষ থেকে কেউ না আশায় শালিশে কোন সিদ্ধান্ত নেয়া যায়নি।

পরে এলাকাবাসীর চাপে পরে ইউনুছ মিয়া সামাজিকভাবে ওই মহিলাকে পুত্রবধূ করার সিদ্ধান্ত নেন। যাকিনা আনুষ্ঠানিকভাবে
গতকাল ১৯ জুন সোমবার সম্পাদন করা হয়। দেড় লাখ টাকার কাবিননামায় অনুষ্ঠেয়  উক্ত বিয়েতে স্থানীয় ওয়ার্ড মেম্বার আল আমিন খন্দকার, সমাজ সেবক আলী করিম খন্দকার, মজনু পুলিশ, বাশবাজারের বিশিষ্ঠ ব্যবসায়ী আসাদ খন্দকার, ইয়ার হোসেন সহ আরো অনেকেই উপস্থিত ছিলেন।

ওয়ার্ড মেম্বার আল আমিন খন্দকার জানান, সামাজিকভাবে  এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের সাথে দু’পক্ষের লোকজন নিয়ে আলোচনায় বসে বিয়ের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

Comments

comments

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০