শিরোনাম

প্রচ্ছদ জাতীয়, শিরোনাম, স্লাইডার

নবীনগরের কৃতি সন্তান টেকনো ড্রাগসের মালিক করোনা চিকিৎসায় রিসোর্ট দিতে চান

ডেস্ক রিপোর্ট | শনিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২০ | পড়া হয়েছে 198 বার

নবীনগরের কৃতি সন্তান টেকনো ড্রাগসের মালিক করোনা চিকিৎসায় রিসোর্ট দিতে চান

দেশের অন্যতম ওষুধ উৎপাদনকারি প্রতিষ্ঠান টেকনো ড্রাগস লিমিটেডের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান গ্রীনটেক রিসোর্ট এন্ড কনভেশন সেন্টারকে করোনা রুগীদের চিকিৎসার জন্য চিকিৎসা সেন্টার বানাতে সরকারের নিকট আবেদন করেছেন প্রতিষ্ঠানের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহ জালাল উদ্দিন আহমেদ। ইতিমধ্যে এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী বরাবর একটি লিখিত আবেদনও করেছেন তিনি। দুর্যোগকালিন এই সময়ে মানব সেবার গুরুত্ব বিবেচনা করে প্রতিষ্ঠানটি এমন উদ্যোগ নিয়েছে বলে জানা গেছে।

গাজীপুরে অবস্থিতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কের এক নম্বর গেটের উল্টো পাশে অবস্থিত রিসোর্টটি প্রায় ২৫ বিঘা জমির উপর নির্মিত। যেখানে আইসোলেশন বা কোয়ারেন্টাইনের উপযোগি প্রায় ৮৬টি রুম, যার প্রতিটিতে সংযুক্ত বাথরুম, এসি এবং গরম ও ঠান্ডা পানির ব্যবস্থা রয়েছে।


এছাড়া ডাক্তারদের জন্য আলাদা ১০টি সুসজ্জিত রুম এবং নার্সদের থাকার জন্য আলাদা দুই বেডের ২৪টি রুম রয়েছে। যেখানে প্রায় ৪০০ থেকে ৫০০ লোকের বেড স্থাপন করে চিকিৎসা দেয়া যাবে। এর বাইরে প্রায় ২০০ লোকের খাবারের জন্য ডাইনিংয়ের ব্যবস্থাও রয়েছে। ডাক্তার নার্সদের জন্যও আলাদা ডাইনিংয়ের ব্যবস্থা রয়েছে।

সুবুজে সুসজ্জিত গ্রীণটেক রিসোর্টে করোনা রুগীদের চিকিৎসা কেন্দ্র বানালে একদিকে সময় এবং অর্থ বাঁচবে আরেকদিকে শহরের বাইরে অবস্থিত জায়গাটি কোলাহলমুক্ত এবং নিরিবিলি পরিবেশ হওয়ায় নিরাপদ দুরত্বে রাখা যাবে করোনা রুগীদের।

প্রতিষ্ঠানের এমডি শাহ জালাল উদ্দিন জানান, মানবতার কল্যানে তিনি এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। জায়গাটি আপদকালিন করোনা রুগীদের চিকিৎসার জন্য ব্যবহারে ঘোষনা দিলে তিনি এবং তার প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা গর্ববোধ করবেন। তিনি জানান, তার আবেদনের ভিত্তিতে ইতিমধ্যে সরকারের সংশ্লিষ্ট ব্যাক্তিরা স্পট পরদির্শন করেছেন। যদিও এখন পর্যন্ত কোন সিদ্ধান্ত জানানো হয়নি।

এ বিষয়ে গাজীপুর (সদর) উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল জাকি বলেন, গ্রীনটেক রিসোর্ট কর্তৃপক্ষের পর তারা স্পটটির খোঁজ-খবর নিয়েছেন এবং স্থাপনাগত সব কিছুই ঠিকঠাক আছে বলে মনে হয়েছে। মেডিক্যাল যন্ত্রপাতি এবং চিকিৎসকের ব্যবস্থা করা গেলে করোনা চিকিৎসা কেন্দ্রে বানানো যেতে পারে। তিনি এ বিষয়ে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের কাছে নোট দিয়েছেন। এখন সিদ্ধান্ত কি হবে সেটি সরকারের নির্দেশনার উপর নির্ভর করছে।

অন্যদিকে গাজীপুর ৩ আসনের সংসদ সদস্য ইকবাল হোসন সবুজ জানান, তিনি বিষয়টি জানেন। তবে এখন পর্যন্ত কোন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি।

এদিকে গাজীপুর শহরের শহীদ তাজ উদ্দিন মেডিক্যাল কলেজ এন্ড হাসপাতালকে জেলার কেন্দ্রীয় আইসোলেশন সেন্টার করার পরিকল্পনা রয়েছে জেলা প্রশাসনের। পাশাপাশি এই হাসপাতালের দশ কিলোমিটারের ভেতর ৮ থেকে ১০ টি রিসোর্ট, আবাসিক হোটেল কিংবা এ ধরনের স্থাপনাকেও করোনা রুগীদের চিকিৎসা কেন্দ্র বানানোর পরিকল্পনা রয়েছে।
এজন্য তারা প্রাথমিক একটি তালিকাও প্রস্তুত করেছেন।

তথ্য সূত্রঃ চ্যানেল ২৪

Comments

comments

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

ভালো নেই : আকবর আলি খান

০৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ | 6642 বার

স্বর্ণের দাম কমেছে

২৯ মে ২০১৬ | 3188 বার

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১